বাগমারায় সোহাগ হত্যা মামলার আসামী নওশিদ গ্রেপ্তার - দৈনিক বাগমারা
বুধবার , ১৫ মে ২০২৪ | ২রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি
  3. আইন ও বিচার
  4. আন্তর্জাতিক
  5. খেলাধুলা
  6. চাকরি
  7. জাতীয়
  8. জীবনযাপন
  9. তথ্য ও প্রযুক্তি
  10. ধর্ম
  11. বাগমারা উপজেলা
  12. বিনোদন
  13. রাজনীতি
  14. শিক্ষা ও ক্যাম্পাস
  15. সম্পাদকীয়

বাগমারায় সোহাগ হত্যা মামলার আসামী নওশিদ গ্রেপ্তার

প্রতিবেদক
Dainik Bagmara
মে ১৫, ২০২৪ ৪:২৩ অপরাহ্ণ

বাগমারা প্রতিনিধি

রাজশাহীর বগমারায় আলোচিত সোহাগ হোসেন হত্যা মামলার আরেক আসামী নওশিদ হোসেনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত নওশিদ মরুগ্রাম ডাংগাপাড়া গ্রামের মৃত আফতাব এর ছেলে। বুধবার সন্ধ্যার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ভাগনদী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের একটি দল মরুগ্রামে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করে। পুলিশের উপস্থিতি বুঝতে পেরে প্রথমে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে ধাওয়া করে নওশিদ হোসেনকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয় পুলিশ।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতার ঘটনায় বন্ধুর বাড়িতে বেড়াতে এসে সন্ত্রাসীদের হাতে নির্মম ভাবে খুন হয় সোহাগ হোসেন (২৬)। নিহত সোহাগ যশোরের মনিরামপুর এলাকার শরিফুল ইসলাম মিস্ত্রীর ছেলে। গত (২ ফেব্রæয়ারি) শুক্রবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার ঝিকরা ইউনিয়নের মরুগ্রাম ডাঙ্গাপাড়া এলাকায় সন্ত্রাসীরা সোহাগ হোসেনকে খুন করে পালিয়ে যায়।

ওই ঘটনায় প্রথমে সোহাগের চাচাতো ভাই সাইফুল ইসলাম সাগর বাদী হয়ে গত (৩ ফেব্রæয়ারি) বাগমারা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। পরে ওই ঘটনায় ১৯ ফেব্রæয়ারি সোহাগের পিতা বাদী হয়ে রাজশাহীর আদালতে আরেকটি মামলা দায়ের করে। ওই মামলার ২৯ নম্বর আসামী ছিল নওশিদ হোসেন। দীর্ঘদিন পালিয়ে থাকায় তাকে গ্রেপ্তার করা সম্ভয় হয়নি। গ্রেপ্তারকৃত নওশিদ হোসেনের বিরুদ্ধে এর আগেও একাধিক অপকর্মের অভিযোগ রয়েছে বলে জানান এলাকাবাসী।

এ ব্যাপারে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা বাগমারা থানার ওসি তদন্ত সবুজ রানা, সোহাগ হত্যা মামলাটি ভালোভাবে ক্ষতিয়ে দেখা হচ্ছে। হত্যা কান্ডের সাথে জড়িতদের গ্রেপ্তার করা হচ্ছে। গ্রেপ্তারকৃত আসামীকে বৃহস্পতিবার আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হবে। হত্যার সাথে জড়িত কাউকে ছাড় দেয়া হবে না। ওই মামলায় এরই মধ্যে বেশ কয়েকজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

Facebook Comments Box

সর্বশেষ - বাগমারা উপজেলা

x
error: Content is protected !!